ভোটের আগেই দেওয়া হবে বাড়ি তৈরির টাকা। এই কাজ না সারলে আবাস যোজনার টাকা পাবেন না!

সবাই কেমন আছেন? এই পোস্টে প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনা সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ তথ্য আপনাদের কাছে উপস্থাপন করবো। আসন্ন পঞ্চায়েত নির্বাচনের আগেই আবাস প্লাসে টাকা দিতে শুরু করবে কেন্দ্র সরকার? রাজ্যের প্রায় ১১ লাখ আবেদনকারী Pradhan Mantri Awas Yojana এর আওতায় নাম নথিভুক্ত করেছেন। তবে সকলেই ঘর তৈরির টাকা পাচ্ছেন না? আগামী জুলাই মাসে কাদের টাকা দিতে চলেছে সরকার। কাদের টাকাই বা আটকে রয়েছে? কোন সমস্যার কারণে টাকা পাওয়া থেকে বঞ্চিত হলেন বাংলার মানুষ? কি করলে আবাস যোজনার টাকা পেতে পারেন তা নিয়ে সবিস্তারে আলোচনা করা হলো এই প্রতিবেদনে।

কেন্দ্র সরকার রাজ্যকে পরিস্কার জানিয়ে দিয়েছে, বাংলার প্রায় ৭ লাখ আবেদনকারী প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনার আওতায় টাকা পাবেন না। পয়লা জুলাই থেকে সরকার উপভোক্তাদের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে টাকা পাঠানো শুরু করলেও উক্ত আবেদনকারীদের অ্যাকাউন্টে পাকা বাড়ি তৈরির টাকা জমা পড়বে না। এর কারণ হিসেবে জানানো হয়েছে, নতুন নিয়ম অনুসারে আবাস যোজনার সুবিধা পেতে আবেদনকারী কে PFMS এর মাধ্যমে আবাস যোজনার আবেদনের সাথে আধার তথ্য সংযুক্ত করতে হবে।

PFMS বা Public Financial Management System হলো কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকারের বিভিন্ন প্রকল্পের টাকা সুবিধাভোগীদের ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্টে পাঠানোর ব্যবস্থা কে নিয়ন্ত্রণ করে এমন পোর্টাল। যদিও রাজ্য, কেন্দ্রকে চিঠি দিয়ে জানিয়েছে, উক্ত পোর্টালে সমস্যা থাকার কারণে প্রচুর সংখ্যক মানুষ আবাস যোজনার আবেদনের সাথে আধার লিঙ্ক করতে ব্যর্থ হচ্ছেন। তবে কেন্দ্রের তরফে বিবৃতিতে জানানো হয়েছে, এই বিষয়টি বিচারাধীন এবং এই ব্যাপারটি সমাধানের জন্য দেখা হবে। তবে জুলাইয়ের শুরুতে ঘরের টাকা পাঠানো হলে বহু মানুষই কেন্দ্রের এই জনহিতকর প্রকল্পের টাকা পাবেন না!

আরও পড়ুনঃ- পিএম কিষাণের ১৪ তম কিস্তি নিয়ে গুরুত্বপূর্ণ আপডেট। কবে দেওয়া হবে টাকা?

উল্লেখ্য নবান্নের তরফে জানানো হয়েছে, রাজ্যে আবাস যোজনার আওতায় বাড়ি তৈরির জন্য বরাদ্দকৃত আট হাজার কোটি টাকা কেন্দ্রের কাছে পায় রাজ্য। তবে ১১ লাখ আবেদনকারীর মধ্যে মাত্র চার লাখ মতো আবেদনের ক্ষেত্রে আধার ভেরিফিকেশন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করেছে কেন্দ্র। কেন্দ্র সূত্রে আরও খবর, দেশে আবাস যোজনার আধার যাচাইকরণের ক্ষেত্রে সবচেয়ে এগিয়ে রয়েছে গুজরাট। দেশের মধ্যে কেবল পশ্চিমবঙ্গেই এত বিশাল সংখ্যক আবেদনকারীর Aadhaar Verification এর কাজ অসম্পূর্ণ অবস্থায় পড়ে রয়েছে।

এমতবস্থায় জুলাইয়ের প্রথম সপ্তাহে নির্বাচনের আগেই যদি আবাস যোজনার টাকা দিতে শুরু করে সরকার, তবে বাংলার বহু মানুষ প্রধানমন্ত্রীর এই স্বপ্নের বাড়ি তৈরির প্রকল্পের সুবিধা পাওয়া থেকে বঞ্চিত হবেন। যেকারণে তেইশে পঞ্চায়েত ভোট ও আসন্ন চব্বিশে লোকসভা নির্বাচনের প্রাক্কালে চাপের মুখে পড়তে চলেছে গেরুয়া শিবির বলে মনে করছেন রাজনৈতিক মহলের বিশেষজ্ঞরা। যদিও এই বিষয়ে এখনো পর্যন্ত কোনো সমাধানের কথা ঘোষণা করেনি কেন্দ্র। তবে জুলাই থেকেই আবাস যোজনার টাকা দেয়া শুরু হলে আধার তথ্য যাচাইকরণ ব্যর্থতার কারণে অনেকেই যে টাকা পাবেন না তা স্পষ্ট। এখন কেন্দ্র এই সমস্যার কোনো সমাধান বের করবে এই আশায় মুখিয়ে আছেন আপামর রাজ্যবাসী তথা সাধারণ মানুষ।

আরও পড়ুনঃ- অর্থের অভাবে বন্ধ হবে না পড়াশোনা। শিক্ষার্থীরা আবেদন করুন এই স্কলারশিপে।

প্রধানমন্ত্রী আবাস যোজনা সংক্রান্ত সর্বশেষ তথ্য পেতে আমাদের হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে জয়েন হোন। চাইলে গুগল নিউজ এ আমাদের ফলো করতে পারেন।

হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ:- Link

Like Facebook Page