Â

ওয়েসিস স্কলারশিপ ২০২৩ সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ আপডেট। আবেদন করে পেয়ে যান ভালো পরিমাণ বৃত্তি।

ছাত্র ছাত্রীদের জন্য সুখবর। ওয়েসিস স্কলারশিপ ২০২৩ এ আবেদন সংক্রান্ত গুরুত্বপূর্ণ আপডেট। মেধাবী, মধ্যমান, পড়াশোনায় কম ভালো সব ধরনের ছাত্র-ছাত্রীরা যাতে বৃত্তির সাহায্যে তাদের উচ্চশিক্ষা কে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারেন তার জন্য কেন্দ্র ও রাজ্য সরকারগুলির তরফে বিভিন্ন স্কলারশিপ প্রদান করা হয়ে থাকে বিদ্যার্থীদের। এই স্কলারশিপে আবেদন করলে পড়ুয়ারা তাদের লেখাপড়া কে সুন্দরভাবে এগিয়ে নিয়ে যেতে পারবেন। এই পোস্টে ওয়েসিস স্কলারশিপ ২০২৩ এর আবেদন প্রক্রিয়া, শিক্ষাগত যোগ্যতা ও প্রয়োজনীয় নথি সম্পর্কে বিস্তারিত তথ্য জেনে নিন।

ওয়েসিস স্কলারশিপ টি পশ্চিমবঙ্গ সরকারের Backward Classes Welfare Department ও কেন্দ্র সরকারের যৌথ উদ্যোগে প্রতিবছর সকল ছাত্র ছাত্রীকে দেওয়া হয়ে থাকে। এই স্কলারশিপ টি মূলত দু’টি ভাগে বিভক্ত। এক, নবম-দশম শ্রেণি পর্যন্ত প্রি-ম্যাট্রিক স্কলারশিপ এবং একাদশ শ্রেণি থেকে স্নাতকোত্তর স্তর পর্যন্ত প্রদেয় বৃত্তি পোস্ট-ম্যাট্রিক স্কলারশিপ নামে পরিচিত।

ওয়েসিস স্কলারশিপে আবেদন যোগ্যতা:-

প্রি ম্যাট্রিক স্কলারশিপের জন্য নিম্নরূপ আবেদন যোগ্যতা প্রয়োজন।

১) যে কোর্সের জন্য আবেদন করবেন তার আগের শ্রেণিতে ন্যূনতম ৫০% নম্বর পেতে হবে।
২) পারিবারিক বাৎসরিক ইনকাম ২.৫ লক্ষ টাকার মধ্যে হতে হবে।
৩) আবেদনকারীর অবশ্যই জাতিগত শংসাপত্র থাকতে হবে।
৪) অন্য সরকারি বৃত্তি পেয়ে থাকলে এই স্কলারশিপে আবেদন যোগ্য নন।

পোস্ট ম্যাট্রিক স্কলারশিপে আবেদনের ক্ষেত্রে নিম্নলিখিত যোগ্যতা থাকা আবশ্যক।

১) আবেদনকারী কে পূর্ববর্তী শ্রেণীতে ন্যূনতম ৫০% নম্বর পেয়ে পাস করতে হবে।
২) আবেদনকারীর SC/ST/OBC সার্টিফিকেট থাকা বাঞ্ছনীয়।
৩) অন্য কোনো সরকারি স্কলারশিপে আবেদন জানালে এই স্কলারশিপে আবেদন করবেন না।

OASIS Scholarship এ কোন কোর্সে কত বৃত্তি পাবেন?

১) নবম, দশম, একাদশ-দ্বাদশ, আইটিআই ও ডিপ্লোমা কোর্সে পাঠরত পড়ুয়ারা বার্ষিক ৩৫০০ টাকা পর্যন্ত বৃত্তি পাবেন।
২) স্নাতক কোর্সে পাঠরত শিক্ষার্থীরা বছরে ৫,৫৫০ টাকা বৃত্তি পেয়ে থাকেন।
৩) স্নাতকোত্তর বর্ষের পড়ুয়ারা বাৎসরিক ১০,০০০ টাকা বৃত্তি পেয়ে যাবেন এই স্কলারশিপের অধীনে।

আরও পড়ুনঃ- ভুলবশত অপরিচিত UPI তে টাকা পাঠালে টাকা ফেরত পাবেন কিভাবে ?

কিভাবে আবেদন করবেন ?

ওয়েসিস স্কলারশিপে আবেদনের জন্য অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে (www.oasis.gov.in) গিয়ে একটি বৈধ মোবাইল নম্বর ও ইমেইল আইডি দিয়ে নাম নথিভুক্ত করুন এবং ইউজার আইডি ও পাসওয়ার্ড তৈরি করুন। এবারে Login ID ও Password দিয়ে লগইন করুন। আপনি কোন কোর্স এ পাঠরত তা নির্বাচন করুন। এরপর প্রয়োজনীয় নথি সহযোগে অনলাইন আবেদন পত্রটি ভালোভাবে পূরণ করে তা প্রিন্ট করুন। এখন উক্ত ফর্মটি প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস এর জেরক্সের সাথে আপনি যেই শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে পাঠরত সেখানে জমা করতে হবে।

জমা দেয়ার পূর্বে আবেদনপত্রে প্রধান শিক্ষক/ Teacher in Charge/ Principal/ উপাচার্যকে দিয়ে সিল সিগনেচার করিয়ে নেবেন।

কি কি ডকুমেন্টস প্রয়োজন?

Oasis Scholarship 2023 এ আবেদনের সময় নিম্নলিখিত ডকুমেন্টস গুলি সঙ্গে রাখতে হবে।

১) আধার কার্ড।
২) পাসপোর্ট সাইজ ফটো।
৩) পূর্ববর্তী শ্রেণীতে পাসের মার্কশীট।
৪) নতুন কোর্সে ভর্তির রিসিভ কপি।
৫) পরিবারের বার্ষিক আয়ের প্রমাণপত্র।
৬) কাস্ট সার্টিফিকেট।
৭) খাদ্যসাথী নম্বর।
৮) ব্যাঙ্ক অ্যাকাউন্ট ডিটেইলস।

রিন্যুয়াল:-

যেসকল শিক্ষার্থী আগের বছরগুলোতে ওয়েসিস স্কলারশিপ এর টাকা পেয়েছেন তাদের নতুন কোর্সে এই স্কলারশিপের টাকা পেতে উক্ত অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে রিন্যুয়াল এ গিয়ে আবেদন পত্র পূরণ করলে পরবর্তী কোর্সেও এই স্কলারশিপ আওতায় নির্দিষ্ট পরিমাণ বৃত্তি পেয়ে যাবেন।

আরও পড়ুনঃ- জুলাই মাসেও পাবেন না লক্ষ্মী ভাতা! লক্ষ্মীর ভান্ডার নিয়ে জুন মাসে তিনটি গুরুত্বপূর্ণ বড়ো আপডেট।

আবেদনের তারিখ:-

২০২৩-২৪ শিক্ষাবর্ষে ওয়েসিস স্কলারশিপে আবেদন প্রক্রিয়া শুরু হবে চলতি বছর আগস্ট-সেপ্টেম্বর মাসে। শিক্ষা দপ্তর ও Backward Classes Welfare Department আবেদন সংক্রান্ত নোটিশ দিলে সাথে সাথে আমাদের এই সাইটে তা জানানো হবে। অন্যান্য আপডেট সংক্রান্ত নোটিফিকেশন পেতে ফেসবুকে আমাদের Follow করুন।

রাজ্য ও কেন্দ্র সরকারের অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ স্কলারশিপ সম্বন্ধে প্রতিনিয়ত আপডেট পেতে আমাদের Google News এ ফলো করুন। চাইলে আমাদের টেলিগ্রাম ও হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপে যুক্ত হতে পারেন।

টেলিগ্রাম গ্রুপ:- Link

হোয়াটসঅ্যাপ গ্রুপ:- Link

Like Facebook Page