Â

কেন্দ্রের এই প্রকল্পে ১,০০০ টাকা করে পাচ্ছেন মেয়েরা। এখুনি আবেদন করুন।

নারী শিক্ষার প্রসারে এবং নারী জাতির উন্নতিকল্পে দেশের সকল যোগ্য মেয়েদের হাজার টাকা করে দিচ্ছে কেন্দ্র সরকার। মূলত কেন্দ্র সরকার এই প্রকল্পের মাধ্যমে নারীরাও যে কোনো অংশে কম নয়, জনমানসে সেই সচেতনতা ছড়াতে চেয়েছে। এই প্রকল্পে কিভাবে আবেদন জানাবেন, কারা আবেদন করতে পারবেন? আবেদনের সময় কি কি নথি প্রয়োজন বিস্তারিত জানতে নিচের সম্পূর্ণ নিবন্ধটি পড়ুন।

সমাজে বিভিন্ন ক্ষেত্রে মহিলারদের অবহেলা করা হয়ে থাকে। বিভিন্ন কার্যক্রমে অংশগ্রহণ থেকেও বঞ্চিত হয়ে থাকেন মেয়েরা। অজ্ঞানতার সেই অন্ধকার থেকে সমাজকে আলোর দিশা দেখাতে সুকন্যা সমৃদ্ধি, কন্যাশ্রীর মতো একাধিক স্কীম চালু করেছে কেন্দ্র ও রাজ্য সরকার। তেমনি একটি নারী কল্যাণ মূলক কেন্দ্রীয় সরকারের বালিকা সমৃদ্ধি যোজনা। এই যোজনার মাধ্যমে কন্যা সন্তান জন্মানো থেকে শুরু করে মাধ্যমিক স্তর পর্যন্ত বালিকা ছাত্রীদের পড়াশোনার ভার বহন করে কেন্দ্র সরকার। ক্লাস অনুযায়ী বিভিন্ন পরিমাণ টাকা পড়াশোনার খরচ চালানোর জন্য বৃত্তি হিসেবে প্রদান করা হয় শিক্ষার্থী ছাত্রীদের।

পড়াশোনার জন্য কত টাকা আর্থিক সাহায্য দেওয়া হয়?

কেন্দ্রীয় সরকারের এই যোজনায় শ্রেণি অনুযায়ী নিম্নলিখিত পরিমাণ টাকা প্রত্যেক বছর বালিকাদের প্রদান করা হয়ে থাকে।

১) ক্লাস ওয়ান থেকে ক্লাস থ্রি পর্যন্ত ৩০০ টাকা।
২) চতুর্থ শ্রেণীর পড়ুয়াদের ৫০০ টাকা দেওয়া হয়।
৩) পঞ্চম শ্রেণীর পড়ুয়াদের ৬০০ টাকা পেয়ে থাকেন।
৪) ক্লাস VI ও VII এর বালিকাদের ৭০০ টাকা করে বৃত্তি দেওয়া হয়।
৫) অষ্টম শ্রেণীর ছাত্রীদের ৮০০ টাকা স্কলারশিপ দেওয়া হয়।
৬) নবম শ্রেণী ও মাধ্যমিকে পাঠরত বালিকাদের লেখাপড়ার জন্য বার্ষিক ১,০০০ টাকা করে আর্থিক সহায়তা প্রদান করা হয় কেন্দ্র সরকারের তরফে।

আরও পড়ুনঃ- আগস্টে হবে ষষ্ঠ-দশমের দ্বিতীয় সামেটিভ পরীক্ষা। তার আগে ফের একটানা লম্বা ছুটি পেতে চলেছে পড়ুয়ারা।

বালিকা সমৃদ্ধি যোজনায় আবেদনের শর্ত:-

১) বালিকা সমৃদ্ধি যোজনায় আবেদনের ক্ষেত্রে শহর ও গ্রামীণ এলাকার জন্য পৃথক পৃথক ফর্ম পূরণ করতে হবে।
২) কেবল বিপিএল তালিকাভুক্ত কন্যারাই এই প্রকল্পের অধীনে সুবিধা পাবেন।
৩) কন্যা শিশু জন্মের পর থেকে দশম শ্রেণি পর্যন্ত এই সরকারি সহায়তা পাবেন বালিকারা।
৪) একই পরিবারের সর্বোচ্চ ২ জন্য কন্যা এই যোজনার সুবিধা নিতে পারবেন।

কি কি নথি প্রয়োজন?

১) আবেদনকারী বালিকার জন্ম প্রমাণপত্র।
২) পরিচয়পত্র (আধার/রেশন কার্ড)।
৩) অভিভাবক-অভিভাবিকা ফটো আইডেন্টিটি কার্ডের প্রতিলিপি।
৪) পিতা-মাতার বাসস্থানের ডোমেশিয়াল সার্টিফিকেট।
৫) অন্যান্য প্রয়োজনীয় ডকুমেন্টস।

balika-samridhi-yojana

বালিকা সমৃদ্ধি যোজনায় কিভাবে আবেদন করবেন?

কেন্দ্র সরকারের এই যোজনায় দুইভাবে আবেদন করতে পারেন আগ্রহী প্রার্থীরা। এক, অনলাইনে কেন্দ্রীয় সরকারের অফিশিয়াল ওয়েবসাইটে গিয়ে প্রয়োজনীয় নথি সহযোগে আবেদন ফর্ম পূরণ ও ডকুমেন্টস আপলোড করে ফর্ম সাবমিট করতে পারেন। নতুবা,

দুই, আপনার নিকটবর্তী স্বাস্থ্য কেন্দ্র/হেল্থ সেন্টারে আবেদন পত্র জমা করার মাধ্যমেও কেন্দ্র সরকারের এই প্রকল্পের আওতায় আবেদন জানাতে পারবেন প্রার্থী।

আরও পড়ুনঃ- পড়ুয়াদের পড়াশোনার সমস্ত খরচ দেবে এই সংস্থা। আবেদন করুন কোল ইন্ডিয়া স্কলারশিপ এ।

আবেদন ফর্ম কোথায় পাবেন?

এই যোজনার আবেদন ফর্ম নিকটবর্তী স্বাস্থ্য কেন্দ্র অথবা অঙ্গনওয়ারি সেন্টার থেকেই সংগ্রহ করতে হবে।

কেন্দ্র সরকারের অন্যান্য সমস্ত প্রকল্প সম্বন্ধে সবধরনের গুরুত্বপূর্ণ আপডেট পেতে গুগল নিউজ এ আমাদের ফলো করুন। নীচের Link এর মাধ্যমে হোয়াটসঅ্যাপ ও টেলিগ্রামে যুক্ত হন।

টেলিগ্রাম গ্রুপ:- Link

হোয়াটসঅ্যাপ:- Link

Like Facebook Page